আপডেট ৩৭ min আগে ঢাকা, ২৩শে অক্টোবর, ২০১৭ ইং, ৮ই কার্তিক, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ, ১লা সফর, ১৪৩৯ হিজরী

Breaking News
{"effect":"fade","fontstyle":"Bold","autoplay":"true","timer":4000}

প্রচ্ছদ প্রধান প্রতিবেদন

Share Button

কনজারভেটিভদের মধ্যে গৃহযুদ্ধঃ লিডারশিপ না ব্রেক্সিট!

| ১২:৩৫, জুলাই ১৬, ২০১৭

সৈয়দ শাহ সেলিম আহমেদ,লন্ডন টাইমস নিউজ, ১৬ জুলাই ২০১৭ঃ পুরো সপ্তাহ কেবল নয়, ইনফ্যাক্ট নির্বাচনের ফলাফল ঘোষণার পর থেকেই এক ধরনের স্পেকুলেশন ছড়িয়ে পরে কে হতে যাচ্ছেন ক্ষমতাসীন দলের নয়া লিডার। বিরোধীদলীয় নেতা জেরেমি করবিন, ডায়ান অ্যাবোট, ম্যাকডোনাল্ড এই প্রতিযোগিতায় আগুনের মধ্যে শুধু ঘি ঢেলে দিচ্ছেন আর কনজারভেটিভের ভিতরের যুদ্ধ দিনের পর দিন ভেতরের কেবিনেটের টেবিল ছাড়িয়ে বাইরের জগতে এসে আছরে পড়ছে।

 

গত সপ্তাহে ব্রিটেনের প্রভাবশালী দুটি পত্রিকার শিরোনাম ছিলো- “Even a woman can drive a train” এবং  “public sector workers are overpaid”। দুটি পত্রিকার শিরোনাম নিয়ে ক্ষমতাসীন দলের ভিতরে ও বাইরের জগতে, মিডিয়া এবং রাজনৈতিক অঙ্গনে ব্যাপক তোলপাড় তুলে। অনেকেই ইঙ্গিত করেছেন চ্যান্সেলর ফিলিপ হ্যামন্ডের এই মন্তব্যগুলো কোট করেছে পত্রিকা দুটি। কিন্তু প্রশ্ন হলো চ্যান্সেলরের ইনার সার্কেলে মন্তব্য করা এমন বক্তব্য সামনে আসলো কেমন করে ? খোদ ফিলিপ হ্যামন্ড আজকে খেদোক্তি করেছেন সংবাদ মাধ্যমে, পত্রিকার দুটির কথা উল্লেখ না করে বলেছেন, কারা তার বিরুদ্ধে প্রচার করছে?

Home Secretary Amber Rudd described the recent spate of acid attacks as

এটা এখন এক ধরনের পরিষ্কার ব্রেক্সিট ইস্যুতে ব্রেক্সিটিয়ারদের মধ্যে চরম দ্বি-মত এবং দ্বন্ধ লক্ষ্যণীয়। ডেভিড ডেভিস, বরিস জনসন, ফিলিপ হ্যামন্ড, লিয়াম ফক্স– চার মেরুতে অবস্থান করছেন। চ্যান্সেলর হ্যামন্ড কেবিনেটে  সফট ব্রেক্সিট এবং  চাকুরী ও সম্ভাবনা একই সাথে ইইউ এর সাথে  ট্রানজিশনাল এগ্রিম্যান্ট করতে বাকযুদ্ধ করছেন কিন্তু জনসন ও ফক্স সহ অন্যরা ট্রানজিশনাল এগ্রিম্যান্টে একমত হলেও হ্যামন্ডের অন্যান্য ইস্যুর সাথে দ্বিমত পোষণ করছেন।

 

এদিকে ফিলিপ হ্যামন্ড নিজেও ভবিষ্যৎ লিডারশিপ নিয়েও ইনসাইডারদের সাথে আলোচনা করেছেন।

Sir Michael Fallon, Amber Rudd, Boris Johnson, Philip Hammond and David Davis listen to the PM during the election campaign

এটা এখন স্পষ্ট যে, কনজারভেটিভদের কাছে এখন ব্রেক্সিট ডেলিভারির চেয়ে লিডারশিপ যুদ্ধই বড় হয়ে দেখা দিয়েছে। আর লিডারশিপ ব্যাটল যতো সামনে আসবে, ব্রেক্সিট ততো দূরে সরে যাবে।

 

এদিকে নিকি মর্গান ট্রেজারি সিলেক্ট কমিটির চেয়ার নির্বাচিত হওয়ার পর রিমেইনর গ্রুপ আর লেবার রিমেইনর মিলে নতুন প্রাণ ফিরে পেয়েছে।ব্রেক্সিট বিল- গ্রেট রিপিল বিলের বর্তমান ফর্ম আটকে দেয়ার জন্য একাট্রা।

Philip Hammond allegedly said public sector workers were 'overpaid'.

মার্গারেট থ্যাচার যখন ক্ষমতায় ছিলেন, কনজারভেটিভের ভিতরের লবি থেকে তেমনি ক্যু পালটা ক্যু সংবাদ হরহামেশা পত্র পত্রিকায় রিউমার ছড়াতো যে থ্যাচারের বিরুদ্ধে কনজারভেটিভরা এক হচ্ছে। থ্যাচার লিডারশিপ হারাতে যাচ্ছেন। যদিও সেদিন থ্যাচার ছিলেন সংখ্যাগরিষ্ট, কিন্তু বাস্তবতা হলো টেরিজা সংখ্যালঘিষ্ট হয়েও থ্যাচারের ভাগ্যের মতো  এই বুঝি টেরিজা ক্ষমতা হারাতে যাচ্ছেন- এমন অবস্থা ও স্পেকুলেশনের শিকার।থ্যাচার সেদিন এমন অবস্থায়ও  পুরো টার্ম শেষ করতে পারলেও আগামী অক্টোবরের কনজারভেটিভের বিশেষ কনফারেন্সে টেরিজা কতোটুকু টিকে যেতে পারেন, তার উপরই এখন নির্ভর করছে ব্রেক্সিটেরও বর্তমান ফর্মের  ভবিষ্যৎ ।

Mr Hammond was said to have made the 'astonishing' comments in a cabinet meeting.

কেননা বেশ কিছু কনজারভেটিভদের কাছে এখন ব্রেক্সিটের চেয়েও দলীয় নেতৃত্বই প্রধান ইস্যু হয়ে দেখা দিয়েছে। ব্লেয়ার যেমন বলেছেন, প্রতিদিনই নতুন নতুন সিনারিও সামনে আসছে। ঠিক তেমনি ব্রেক্সিটের মতোই কনজারভেটিভদের  মধ্যেও নতুন নতুন বিষয়ে ফোকাস করা হচ্ছে।

 

 

Comments are closed.







পাঠক

Flag Counter



Developed By : ICT SYLHET

Developer : Ashraful Islam

Developer Email : programmerashraful@gmail.com

Developer Phone : +8801737963893

Developer Skype : ashraful.islam625

error: Content is protected !!