অবয়ব

কবি ফাহমিদা সুহা'র কবিতাসমগ্র

প্রকাশিত: ২:২০ অপরাহ্ণ, মার্চ ১৯, ২০২০ | আপডেট: ৩:১২:অপরাহ্ণ, মার্চ ১৯, ২০২০

কবিতা-অবয়ব
কবি-ফাহমিদা সুহা

নিতু,জানো?
আমার রুটিন বাঁধা নেই… তোমার আঁচল জড়ানো কোমর ছুঁয়ে!

তবে,রোজ-
তুরন্ত ঊষা,বিছানা ছেড়ে যুগল প্রেমে হেলে পড়ে! আমারও তো সংসার হয়েছে?তাই দায়িত্ব নিয়ে অপলক যৌবন গিলে খাই!

কখনও-মাথা নত করে নিষধ প্রাচীর চুমো খেয়ে, অতীত হাতরে পিপাসায় ঠোঁট রাখি |
শান্ত নদীর তটে…
-“তৃপ্তি আছে”?
প্রশ্ন’টায় লজ্জা দিওনা!
আমি প্রয়োজন বুঝি, ভালোবাসা খুঁজিনা…

জানো তো-নিতু?
দুপুরের ডালভাত গিলেও- উপশিরা জুড়ে তোমায় পাবার বিজ্ঞাপণ চলে !
উত্তপ্ত লাবডাব শব্দা’টা এমনই বলে…

অথচ,মুঠোবদ্ধ আঙ্গুল জড়িয়ে রাখি,
চুরুটের গায় |
পুরো পাঞ্জাবি ছড়িয়ে ছাই, গন্ধ থাকে জিহ্ব’টায়!

দীর্ঘশ্বাস ছেড়ে,আরও সাতপাঁচ ভেবে…
আনমনে- স্টপার আটকে এক দীর্ঘ সপাট-তান…
কন্ঠ বাঁকিয়ে দিলেম,
রীড জাপটে চিৎকার !
চোখ খুলে বেলো টানতে যাবো-অমনি তুমি দাঁড়িয়ে, লালশাড়ি জড়িয়ে |
গা ভর্তি সুখ!
আঁচল,কুচি,সিলিং পাখার গায়ের জোরে দুলছে;
এ-পার ওপার |
অর্থ বুঝতে চাইনি…
হাত থেমে গেলো,
কন্ঠ চুপসে গেলো,
মস্তিষ্কের নির্গত অভিযোগ উন্মুক্ত হলো |
প্রশ্নের চালবাজিতে আটকাতে যাবো-
অমনি আমি ঘরবদ্ধ,
আগের সেই অগোছালো… একা !